আজ ২৪শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৭ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

মানব সেবায় ব্রত মুক্তিযুদ্ধা প্রজন্মলীগের নেতা আবুল কালাম আজাদ

আলিহোসেন,নিজস্ব প্রতিবেদন: চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার শাহাবাজপুর ইউনিয়নের ধোবড়ায় গ্রাম সন্তান আওয়ামী মুক্তিযুদ্ধা প্রজন্মলীগের নেতা মোঃ আবুল কালাম আজাদ যেন গ্রামের আলৌকরশি প্রতিনিয়ত উপজেলায় বিভিন্ন গ্রামে আলোর মশাল হয়ে রয়েছে।

তবে জানাযায় তিনি ধোবড়া পারদিলাল পুর গ্রামের কৃতি সন্তান 2নং শাহবাজপুর ইউনিয়ন তিন নম্বর ওয়ার্ডের সূর্যসন্তান শিবগঞ্জ উপজেলার আলোকিত মুখ তিনি হলেন আবুল কালাম আজাদ যুগ্মসাধারণ সম্পাদক বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগের  শিবগঞ্জ উপজেলা শাখার

করোনা সংক্রামণ মোকাবিলায় সরকারের পাশাপাশি ব্যক্তি, ক্ষুদ্র সংগঠন এবং প্রতিষ্ঠান এগিয়ে এসেছে ঠিক তেমনি আওয়ামী মুক্তিযুদ্ধা প্রজন্মলীগের নেতা মোঃ আবুল কালাম আজাদ বৃক্ষ রোপনের পশাপাশি প্রতিনিয়ত করোনা লিফলেট, স্যানিটাইজার ও মাস্ক বিতরণ করেছেন। এমকি বিষয়টিকে স্বাগত জানিয়েছেন এলাকাবাসী।

করোনাভাইরাসের দ্রুত বিস্তারে প্রায় থমকে গেছে পুরো দুনিয়া। দেশে বিস্তার রোধে সরকার নিয়েছে নানা পদক্ষেপ। বেশিরভাগ মানুষ এখন নিজ নিজ ঘরে। এর মধ্যেও শিবগঞ্জ উপজেলার মানুষের ভয়কে জয় করে মানুষের সেবায় আত্ম নিয়োগ করেছেন  মুক্তিযুদ্ধা প্রজন্মলীগের নেতা আবুল কালাম আজাদ তার মধ্যই নিজই শ্রম দিয়ে বিভিন্ন সেবামূলক কাজ কররে যাছে তিনি।

জনৈক ব্যক্তি বলেন, বর্তমানে উপজেলার শাহাবাজপুর ইউনিয়নে সর্বত্ত সেবায় আবুল কালামের হাতের ছোয়া রয়েছে তবে আমার জানামতে, ব্রিজ, ডেন, রাস্তা, সোলার স্ট্রীট লাইট স্থাপন, বৃক্ষরোপণ গোরস্থান ,স্কুলসহ সহ অরেক উন্নয়নমূলক কাজ করেছেন। এমন উন্নয়নমূলক কাজের জন্য আমি স্বাগত জানাই।  আবুল কালাম আজাদের বলেন, আমি মো: আবুল কালাম আজাদ আপনার ছেলে, আপনার সন্তান বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার উদ্যোগ গ্রাম হবে শহর। তার ধারাবাহিকতায় কিছু উন্নয়নের চিত্র আপনাদের সাথে নিয়ে ২নং শাহবাজপুর ইউনিয়নের সেবা করে যাব। যা আপনারা জানেন চার তলা একাডেমিক ভবন ধোবড়া অনেক উচ্চ বিদ্যালয় এবং শাহবাজপুর সোনামসজিদ ডিগ্রী কলেজে চারতলা বিশিষ্ট একাডেমী ভবন ও একটা গেট নির্মাণ কাজে সহায়তা এবং

শাহবাজপুর সন্ন্যাসী হতে কয়লাদিয়ার বাজার পর্যন্ত ৩ কিলোমিটার রাস্তা পাকাকরণ কাজে সহায়তা আরো সহযোগিতা সন্ন্যাসী জামে মসজিদের সামনে একটি ব্রিজ নির্মান এবং পাতুর বাড়ির কাছে ব্রিজ নির্মান সহযোগিতা, ধোবড়া বাজার হতে পার দিলালপুর গ্রামের চনকা পাড়া পর্যন্ত এক কিলো রাস্তা পাকা করন কাজে সহযোগিতা এছাড়াও পার দিলালপুর সুইটা পাড়া গ্রামে ২০০ ফিট হেয়ারিং বন্ড রাস্তা সহায়তা , পার দিলালপুর আদাড় পাড়া গ্রামের পানি নিষ্কাশনের জন্য ডেন নির্মাণ কাজে সহযোগিতা করেছি। ধোবড়া বাজারের পাশে আজার বাড়ির কাছে ড্রেন নির্মাণ কাজে সহযোগিতা করেছি ।
এছাড়াও মসজিদ ,গোরস্থান ,স্কুলসহ বিভিন্ন কাজ করতে পেরে আমি আনন্দীত তবে যতদিন বাচবো জনগনের সেবা করে যাব ইনশাআল্লাহ। উন্নয়নের আলো বাংলাদেশ সরকার ”জননেত্রী শেখ হাসিনার উদ্যোগ, গ্রাম হবে শহর” এই ধারাবাহিকতা কে ধারণ করে সাধারন মানুষের সেবক হিসাবে রাত দিন জনগণের সাথে মিসে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করে আসছি। আমি আপনাদের দোয়া চাই ,পাশে থেকে সেবা করতে চাই এটাই আমার প্রত্যাশা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ